সরিষা ফুলের মধু

500.00

20 in stock

খাঁটি   সরিষা ফুলের মধু

SKU: HHV-SFM1 Category:
Store

Description

80 / 100

সরিষা ফুলের মধু

সব মধুর বৈশিষ্ট্য এক না। কোনটার রং লাল,কালো আবার সাদা। কোন মধু জমে যায় আবার কোনটা জমে না। একই মৌমাছি কিন্তু ফুলের ভিন্নতার কারণে মধুর বৈশিষ্ট্য ভিন্ন হয়। সরিষা ফুলের মধুর বৈশিষ্ট্য এই মধু খুবই মিষ্টি। রং হবে হালকা হলুদ বর্ণের।

তবে এই মধুর সবচেয়ে বড় যে বৈশিষ্ট্য, তা আমাদের অনেকের জানা নেই। — সরিষা ফুলের মধু শীতকালে অল্প কিছু দিনের মধ্যেই জমে যায়, আর গরমের সময় জমতে একটু দেরি হয়, কয়েক সপ্তাহ বা ২/৩ মাস বা এর চেয়ে একটু বেশি সময় লেগে যেতে পারে। তবে জমবেই। যদি না জমে, তবে বুঝতে হবে মধুতে সমস্যা আছে। বোতলে রাখা সরিষা ফুলের মধুর পুরোটাই জমে যেতে পারে অথবা বেশিরভাগ অংশ বা আংশিক জমে যাবে। সরিষা ফুলের মধু জমে অনেকটা ঘিয়ের রূপ ধারণ করে। জমে যাওয়া মধু মোলায়েম, নরম, ছোট ছোট দানাদার হবে।

অনেকে সরিষা মধু জমাকে ভুল বোঝেন। তারা একে ভেজাল মনে করেন। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে মধু জমে যাওয়া একটি প্রাকৃতিক প্রক্রিয়া। তরল থেকে দানাদার অর্ধ-কঠিন অবস্থায় যাওয়ার এ প্রক্রিয়াকে গ্র্যানুলেশন (granulation) বা কঠিন মৌচাক থেকে আলাদা করার পর মধু যত দ্রুত জমে, চাকের ভেতর মোমের কোষে থাকলে তত দ্রুত জমে না। প্রতিটি মধুর স্ফটিকায়নের একটা নির্দিষ্ট সময় আছে। জমে যাওয়ায় মধুর রং বদলে যায়, তরল থেকে দানাদার হয়ে যায় কিন্তু মধুর গুণগত মান কমে না।

সাধারণত সরিষা মধু তে ৭০% এর বেশি শর্করা বা কার্বোহাইড্রেট ও ২০% এর কম পানি থাকে। তার মানে স্বাভাবিকভাবে পানিতে যে পরিমাণ চিনি দ্রবীভূত হয়, মধুতে তার চেয়ে অনেক বেশি পরিমাণে থাকে। চিনির মাত্রাতিরিক্ত পরিমাণ দ্রবণকে অস্থিতিশীল করে। একারণেই মধুর জমাট বাধা শুরু হয়। পানি থেকে গ্লুকোজ আলাদা হয়। গ্লুকোজ স্ফটিক আকারে জমতে থাকে। আর দ্রবণটি আস্তে আস্তে সাম্যাবস্থার দিকে যায়।
এছাড়া আরো কিছু নিয়ামক রয়েছে যা স্ফটিকায়ন শুরু করা, তরান্বিত করা ও স্লথ করায় ভূমিকা রাখে। গ্লুকোজ ও ফ্রুক্টোজ ছাড়া মধুর অন্যান্য কার্বোহাইড্রেট উপাদান, এমাইনো এসিড, প্রোটিন, খনিজ, এসিড ইত্যাদিও স্ফটিকায়নের প্রক্রিয়াকে প্রভাবিত করে। এছাড়া ধুলা, পরাগরেণু, মোমের কণা বা বহিরাগত স্ফটিকের উপস্থিতিতেও স্ফটিকায়ন তরান্বিত হতে পারে।

আপেক্ষিক আর্দ্রতা ও প্যাকেটজাত করার ধরণও পার্থক্য গড়ে দিতে পারে। মধুর ধরনের উপর ভিত্তি করে কক্ষ তাপমাত্রায় স্ফটিকায়ন শুরু হতে কয়েক সপ্তাহ, কয়েক মাস এবং বিরল ক্ষেত্রে কয়েক দিন লাগতে পারে।

Additional information

Weight 1 kg

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “সরিষা ফুলের মধু”
No more offers for this product!

Shipping Policy

আপনার প্রতিটি কেনাকাটা এবং প্রতিটি প্রোডাক্ট যাতে সঠিক থাকে, আমরা সেই লক্ষেই কাজ করে যাচ্ছি। এর পরেও যদি কোন কারণে প্রোডাক্টে কোন ম্যানুফ্যাকচারিং ফল্ট থাকে বা প্রোডাক্ট হাতে পাবার পর প্রোডাক্ট কাজ না করে, সেক্ষেত্রে পণ্য এক্সচেঞ্জ বা রিটার্ন করার সুযোগ রয়েছে। প্রোডাক্ট মিসিং বা ভিন্ন প্রোডাক্ট কমপ্লেইন করার ক্ষেত্রে অবশ্যই ডেলিভারি এর সময় ডেলিভারি ম্যান এর সামনে প্রোডাক্ট বুঝে নিন অথবা অবশ্যই আনবক্সিং ভিডিও ধারণ করতে হবে। আনবক্সিং ভিডিও ধারণ ছাড়া প্যাকেজে প্রোডাক্ট মিসিং, প্রোডাক্ট কুরিয়ারে ভেঙ্গেছে বা প্রোডাক্ট ডিফারেন্ট এই ধরনের ইস্যু গ্রহণযোগ্য নয়- তাই ভুল বুঝাবুঝি রোধ কল্পে অবশ্যই প্রোডাক্ট আনবক্সিং ভিডিও ধারণ করার অনুরোধ করা যাচ্ছে।

Refund Policy

যে সকল ক্ষেত্রে রিটার্ন, এক্সচেঞ্জ, ওয়ারেন্টি এবং রিফান্ড প্রযোজ্য হবে না তার লিস্ট নিচে দেয়া হলো-

১.    যদি পণ্যটি পুড়ে যায় বা শারীরিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়

২.   যেকোনো ধরনের সফটওয়্যার বা ডিজিটাল পণ্য

৩.   ক্লিয়ারেন্স সেল পণ্য

৪.   যদি পণ্যের অক্ষত সীল বা স্টিকার সরানো হয়

৫.   আন্ডার গার্মেন্টস আইটেম

৬.  পণ্যের সাথে যেকোন ধরনের আনুষঙ্গিক বা চার্জার বা অ্যাডাপ্টার

৭.   বিনামূল্যে দেওয়া হয় যে কোনো উপহার আইটেম বা পুরস্কার

৮.  যদি পণ্যটিতে স্ক্র্যাচ বা দাগ থাকে, পুনরায় বিক্রয়যোগ্য অবস্থায় না থাকে

৯.  থার্ড পার্টি যেকোনো হার্ডওয়্যার বা ডিভাইস বা অ্যাপ বা সফটওয়্যার এর সাথে কম্প্যাটিবিলিটি ইস্যু যা প্রোডাক্ট এর ডিফল্ট ফিচার নয়

১০. bigbazar.com.bd হল একটি অনলাইন মার্কেটপ্লেস যেখানে বিভিন্ন বিক্রেতা তাদের পণ্য বিক্রির মাধ্যম হিসেবে bigbazar.com.bd-এ স্টোর স্থাপন করে। bigbazar.com.bd এর কোন শোরুম বা আউটলেট নেই, তাই অনলাইনে পণ্য অর্ডার করুন, অনলাইনে পণ্য অর্ডার করলে আপনার অর্ডার সম্পর্কে bigbazar.com.bd কে জানিয়ে দেবে। আপনি (বিক্রেতা/ক্রেতা) bigbazar.com.bd এর অনলাইন মাধ্যম ছাড়া সরাসরি অথবা ব্যক্তিগত যোগাযোগের মাধ্যমে পণ্য ক্রয় বিক্রয় করলে bigbazar.com.bd এর কোন দ্বায়ভার ও দায়িত্ব নেবে না।


প্রোডাক্ট ডেলিভারি পাবার পর দ্রুততম সময়ের মধ্যে চেক করে যদি কোন প্রবলেম দেখতে পান তাহলে অবশ্যই আমাদের কাছে লিখিত অভিযোগ করুন, এক্ষেত্রে ইমেইলকে টপ প্রাইওরিটি দেয়া হবে তবে ছোট সমস্যার জন্য বা কোন প্রোডাক্ট অপারেট কিভাবে করতে হবে এটা নিয়ে কল সেন্টারে কল করে বা ফেইসবুক ইনবক্স করে হেল্প নিতে পারেন।

কোন প্রোডাক্ট রিটার্ন করা প্রয়োজন হলে অবশ্যই এর সাথে প্রদত্ত সকল ধরনের পেপার, বক্স, এক্সেসরিস, ওয়ারেন্টি কার্ড, স্টিকার, লেবেল, গিফট আইটেম ইত্যাদি সহ প্রপারলি বক্স করে বা আলাদা ব্যাগের মধ্যে দিয়ে (কোনভাবেই প্রোডাক্ট এর বক্সে টেপ লাগানো যাবেনা) invoice  ঠিকানায় কুরিয়ার করতে হবে অথবা নিজে বা অন্য কাউকে দিয়ে পাঠাতে হবে। এক্ষেত্রে প্রোডাক্ট আপনার লোকেশন থেকে পিকাপ করার সুযোগ থাকলে আমরা চেষ্টা করবো তবে সেক্ষেত্রে কুরিয়ার চার্জ আপনাকে অগ্রিম পে করতে হবে।

প্রোডাক্ট রিটার্ন করলে অবশ্যই প্রোডাক্ট পুনরায় বিক্রি যোগ্য অবস্থায় থাকতে হবে, কোন পার্টস মিসিং হলে বা বক্স ক্ষতিগ্রস্ত হলে প্রোডাক্ট রিটার্ন রিসিভ করা হবেনা। সব কিছু ঠিক থাকলে প্রোডাক্ট রিসিভ করার পর প্রোডাক্ট চেক করে সব ঠিক থাকলে এর পর ৭২ ঘণ্টার মধ্যে রিফান্ড এর ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

প্রোডাক্ট এর কোন ফল্ট থাকলে তার জন্য ডেলিভারি চার্জ আমরা বহন করবো (ঢাকার ভিতরে ৫০ টাকা ঢাকার বাইরে ১০০ টাকা) এর অতিরিক্ত কোন কুরিয়ার চার্জ থাকলে তা ক্রেতাকে পেমেন্ট করতে হবে। তবে মন চেঞ্জ করা বা পছন্দ না হওয়া বা অন্যান্য ক্ষেত্রে কুরিয়ার চার্জ এবং অন্যান্য পেমেন্ট সেটেলমেন্ট চার্জ পুরোটাই কাস্টমারকেই বহন করতে হবে।

রিফান্ডের সময় ওই অর্ডারে ক্রেতা কোন ক্যাশব্যাক এবং গিফট পেয়ে থাকলে সেটি কাস্টমার থেকে ফেরত নেয়া হবে। ক্যাশব্যাক এর টাকা কেটে বাকি টাকা রিফান্ড করা হবে।

Cancellation / Return / Exchange Policy

যে সকল ক্ষেত্রে রিটার্ন, এক্সচেঞ্জ, ওয়ারেন্টি এবং রিফান্ড প্রযোজ্য হবে না তার লিস্ট নিচে দেয়া হলো-

১.    যদি পণ্যটি পুড়ে যায় বা শারীরিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়

২.   যেকোনো ধরনের সফটওয়্যার বা ডিজিটাল পণ্য

৩.   ক্লিয়ারেন্স সেল পণ্য

৪.   যদি পণ্যের অক্ষত সীল বা স্টিকার সরানো হয়

৫.   আন্ডার গার্মেন্টস আইটেম

৬.  পণ্যের সাথে যেকোন ধরনের আনুষঙ্গিক বা চার্জার বা অ্যাডাপ্টার

৭.   বিনামূল্যে দেওয়া হয় যে কোনো উপহার আইটেম বা পুরস্কার

৮.  যদি পণ্যটিতে স্ক্র্যাচ বা দাগ থাকে, পুনরায় বিক্রয়যোগ্য অবস্থায় না থাকে

৯.  থার্ড পার্টি যেকোনো হার্ডওয়্যার বা ডিভাইস বা অ্যাপ বা সফটওয়্যার এর সাথে কম্প্যাটিবিলিটি ইস্যু যা প্রোডাক্ট এর ডিফল্ট ফিচার নয়

১০. bigbazar.com.bd হল একটি অনলাইন মার্কেটপ্লেস যেখানে বিভিন্ন বিক্রেতা তাদের পণ্য বিক্রির মাধ্যম হিসেবে bigbazar.com.bd-এ স্টোর স্থাপন করে। bigbazar.com.bd এর কোন শোরুম বা আউটলেট নেই, তাই অনলাইনে পণ্য অর্ডার করুন, অনলাইনে পণ্য অর্ডার করলে আপনার অর্ডার সম্পর্কে bigbazar.com.bd কে জানিয়ে দেবে। আপনি (বিক্রেতা/ক্রেতা) bigbazar.com.bd এর অনলাইন মাধ্যম ছাড়া সরাসরি অথবা ব্যক্তিগত যোগাযোগের মাধ্যমে পণ্য ক্রয় বিক্রয় করলে bigbazar.com.bd এর কোন দ্বায়ভার ও দায়িত্ব নেবে না।


প্রোডাক্ট ডেলিভারি পাবার পর চার দিন সময়ের মধ্যে চেক করে যদি কোন প্রবলেম দেখতে পান তাহলে অবশ্যই আমাদের কাছে লিখিত অভিযোগ করুন, এক্ষেত্রে ইমেইলকে টপ প্রাইওরিটি দেয়া হবে তবে ছোট সমস্যার জন্য বা কোন প্রোডাক্ট অপারেট কিভাবে করতে হবে এটা নিয়ে কল সেন্টারে কল করে বা ফেইসবুক ইনবক্স করে হেল্প নিতে পারেন।

কোন প্রোডাক্ট রিটার্ন করা প্রয়োজন হলে অবশ্যই এর সাথে প্রদত্ত সকল ধরনের পেপার, বক্স, এক্সেসরিস, ওয়ারেন্টি কার্ড, স্টিকার, লেবেল, গিফট আইটেম ইত্যাদি সহ প্রপারলি বক্স করে বা আলাদা ব্যাগের মধ্যে দিয়ে (কোনভাবেই প্রোডাক্ট এর বক্সে টেপ লাগানো যাবেনা) invoice  ঠিকানায় কুরিয়ার করতে হবে অথবা নিজে বা অন্য কাউকে দিয়ে পাঠাতে হবে। এক্ষেত্রে প্রোডাক্ট আপনার লোকেশন থেকে পিকাপ করার সুযোগ থাকলে আমরা চেষ্টা করবো তবে সেক্ষেত্রে কুরিয়ার চার্জ আপনাকে অগ্রিম পে করতে হবে।

প্রোডাক্ট রিটার্ন করলে অবশ্যই প্রোডাক্ট পুনরায় বিক্রি যোগ্য অবস্থায় থাকতে হবে, কোন পার্টস মিসিং হলে বা বক্স ক্ষতিগ্রস্ত হলে প্রোডাক্ট রিটার্ন রিসিভ করা হবেনা। সব কিছু ঠিক থাকলে প্রোডাক্ট রিসিভ করার পর প্রোডাক্ট চেক করে সব ঠিক থাকলে এর পর ৭২ ঘণ্টার মধ্যে রিফান্ড এর ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

প্রোডাক্ট এর কোন ফল্ট থাকলে তার জন্য ডেলিভারি চার্জ আমরা বহন করবো (ঢাকার ভিতরে ৫০ টাকা ঢাকার বাইরে ১০০ টাকা) এর অতিরিক্ত কোন কুরিয়ার চার্জ থাকলে তা ক্রেতাকে পেমেন্ট করতে হবে। তবে মন চেঞ্জ করা বা পছন্দ না হওয়া বা অন্যান্য ক্ষেত্রে কুরিয়ার চার্জ এবং অন্যান্য পেমেন্ট সেটেলমেন্ট চার্জ পুরোটাই কাস্টমারকেই বহন করতে হবে।

রিফান্ডের সময় ওই অর্ডারে ক্রেতা কোন ক্যাশব্যাক এবং গিফট পেয়ে থাকলে সেটি কাস্টমার থেকে ফেরত নেয়া হবে। ক্যাশব্যাক এর টাকা কেটে বাকি টাকা রিফান্ড করা হবে।